সেঞ্চুরিয়ান ক্লাবের সপ্তম সদস্য তামিম

প্রকাশিতঃ মার্চ ১৪, ২০১৬ আপডেটঃ ১১:০১ অপরাহ্ন

টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে সেঞ্চুরির রেকর্ড এখন তামিম ইকবালের। গত রোববার ওমানের বিপক্ষে ৫টি ছয় ও ১০টি চারে ১০৩ রানে অপরাজিত ছিলেন তিনি। টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপের ইতিহাসে তামিমের সেঞ্চুরিটি সপ্তম সেঞ্চুরি। এর আগে এই কীর্তি আরো গড়েছিলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্রিস গেইল, ভারতের সুরেশ রায়না, শ্রীলঙ্কার মাহেলা জয়াবর্ধনে, নিউজিল্যান্ডের ব্রেন্ডন ম্যাককালাম, ইংল্যান্ডের অ্যালেক্স হেলস ও পাকিস্তানের আহমেদ শেহজাদ।

ক্রিস গেইল- ১১৭
প্রথম টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে জোহানেসবার্গে প্রথম ম্যাচেই স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সেঞ্চুরি করেন ক্রিস গেইল। ৫৭ বলে ৭ চার ও ১০ ছক্কায় ১১৭ রান করেছিলেন তিনি। আগে ব্যাট করে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ২০৬ রানের বিশাল লক্ষ্য দিয়েও ৮ উইকেটে হেরে যায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। যে তারণে নিজের সেঞ্চুরিটা স্মরণীয় করে রাখতে পারেন নি গেইল।

সুরেশ রায়না- ১০১
২০০৭ সালের পর ২০১০ টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপেও সেঞ্চুরির দেখা মিলছিলো। সেটি করেছিলেন ভারতের সুরেশ রায়না। ওয়েস্ট ইন্ডিজের গ্রস আইলেটে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ৬০ বলে ৯ চার ও ৫ ছক্কায় ১০১ করেছিলেন এই বাঁহাতি। তার সেঞ্চুরিতে ১৪ রানে জয় পেয়েছিল ধোনি বাহিনী।

মাহেলা জয়াবর্ধনে- ১০০
সুরেশ রায়নার পর ২০১০ টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে পরের দিনই প্রোভিডেন্সে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করেন শ্রীলঙ্কার কিংবদন্তী ব্যাটসম্যান মাহেলা জয়াবর্ধনে। ৬৪ বলে ১০ চার ও ৪ ছক্কায় ১০০ রান করেন এই ডানহাতি। ডাক ওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে ম্যাচটিতে ১৪ রানে জিতেছিল শ্রীলঙ্কা।

ব্রেন্ডন ম্যাককালাম- ১২৩
২০১২ টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে নিউজিল্যান্ডের ব্রেন্ডন ম্যাককালাম বাংলাদেশের বিপক্ষে সেঞ্চুরি হাঁকান। শ্রীলঙ্কার পাল্লেকেলেতে ৫৮ বলে ১১ চার ও ৭ ছক্কায় ১২৩ রান করেছিলেন তিনি। যেটি বিশ্বকাপে এখনো সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রানের রেকর্ড এটি। ম্যাচে ৫৯ রানে জয়ী হয়েছিল নিউজিল্যান্ড।

অ্যালেক্স হেলস – ১১৬*
২০১৪ টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে চট্টগ্রামে এক নাটকীয় ম্যাচে একাই ইংল্যান্ডের হাল ধরেন অ্যালেক্স হেলস। শ্রীলঙ্কার দেয়া ১৯০ রানের বিশাল টার্গেটকে হেসে-খেলেই ব্যাট করতে থাকেন এই ডানহাতি। ৬৪ বলে ১১ চার ও ৬ ছক্কা ১১৬ রান করে দলকে জয়ী করেই মাঠ ছাড়েন তিনি। ম্যাচটি ৬ উইকেটে জিতেছিল ইংল্যান্ড।

আহমেদ শেহজাদ – ১১৪*
হেলসের সেঞ্চুরির ঠিক তিন দিন পরই মিরপুরে স্বাগতিক বাংলাদেশের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করেন পাকিস্তানের আহমেদ শেহজাদ। ৬২ বলে ১০ চার ও ৫ ছয়ে করেন ১১১ রানে অপরাজিত থাকেন আহমেদ শেহজাদ। ম্যাচটিতে ৫০ রানে জিতেছিল পাকিস্তান।

তামিম ইকবাল- ১০৩*
চলতি টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপের সপ্তম সেঞ্চুরিটি করেন বাংলাদেশের ড্যাশিং ওপেনার তামিম ইকবাল। ভারতের ধরমশালায় ওমানের বিপক্ষে বিপক্ষে বৃষ্টি বিঘ্নিত ম্যাচে মাত্র ৬৩ বলে ১০ চার ও ৫ ছক্কায় ১০৩ রানে অপরাজিত ছিলেন এই বাঁহাতি। চলতি বিশ্বকাপে এটিই প্রথম সেঞ্চুরি। ম্যাচটিতে বৃষ্টি আইনে ৫৪ রানে জিতে নেয় বাংলাদেশ।

স্পোর্টস ডেস্ক