রাবির হলে অস্বাস্থ্যকর খাবার, বিক্ষোভ-ভাংচুর

প্রকাশিতঃ এপ্রিল ১৫, ২০১৮ আপডেটঃ ৪:৪৯ অপরাহ্ন

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) নবাব আব্দুল লতিফ হলে অস্বাস্থ্যকর খাবার পরিবেশন করায় ডাইনিং ভাংচুর করেছে হলের আবাসিক শিক্ষার্থীরা। রোববার দুপুরে খাবারের সাথে পোকা পাওয়ার ঘটনায় তারা এই ভাংচুর করে। পরে তারা প্রাধ্যক্ষের কার্যালয় ও হল গেটে তালা ঝুলিয়ে বিক্ষোভ সমাবেশ করে। এসময় সমাবেশে শিক্ষার্থীরা তেরোটি দাবি জানান।

দাবিসমূহ হলো, হলের খাবারের মান বৃদ্ধি করা, হলের অভ্যন্তরে পর্যাপ্ত ডাস্টবিন ও পরিস্কার রাখা, গোসলখানা ও টয়লেট আধুনিকায়ন, গেমস রুমে পর্যাপ্ত খেলার সরঞ্জামাদির ব্যবস্থা, রিডিং রুমের ব্যবস্থা, পত্রিকা রুম সংস্কার, ইন্টারনেট সমস্যা সমাধান, হল কর্মকর্তা কর্মচারীদের শোভনীয় আচরণ, টিভি রুম সংস্কার, মসজিদের মাইক ও ওজুখানা সংস্কার, হলের সৌন্দর্য বৃদ্ধিকরণ, বিশুদ্ধ পানির ব্যবস্থা ও পর্যাপ্ত আলোর ব্যবস্থা।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক শিক্ষার্থী বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য হলের তুলনায় এখানে তারা কম সুবিধা পান। ডাইনিংয়ে অস্বাস্থ্যকর খাবার পরিবেশন করা হয়। রাত আটটা বাজলে খাবার ফুরিয়ে যায়, হলে নেই কোনো আধুনিকায়নের ব্যবস্থা। এছাড়া হলের টয়লেটের বেহাল দশা, হলে রিডিং রুম নেই, ফলে লেখাপড়ার ব্যাঘাত সৃষ্টি হচ্ছে।

আরও খবর: ছাত্রলীগের জন্য প্রাণে বেঁচেছেন ঢাবি উপাচার্য: সোহাগ

হলের আবাসিক শিক্ষার্থী ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি তৌহিদ মোরশেদ বলেন, লতিফ হল একটি ঐতিহ্যবাহী হল হিসেবে পরিচিত। কিন্তু বর্তমান হল প্রশাসনের গাফিলতির কারণে হলের উন্নয়ন স্থবির হয়ে আছে। এসব সমস্যা সমাধানে সাধারণ শিক্ষার্থীদের প্রতিনিধি হিসেবে হল ছাত্রলীগ বারবার প্রধ্যক্ষের কাছে অভিযোগ করলেও হলের কোন উন্নয়ন হয়নি।

ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক দাবির সঙ্গে একতত্মা প্রকাশ করছি এবং শিক্ষার্থীদের দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত হল ছাত্রলীগ সবসময় তাদের পাশে থাকবে। এ বিষয়ে জানতে চাইলে হল প্রাধ্যক্ষ বিপুল কুমার বিশ্বাস কিছু বলতে রাজি হননি।

এমও-১০/১৫-০৪ (শিক্ষা ডেস্ক)