আনু মালিকের যৌন হেনস্তার শিকার গায়িকা

প্রকাশিতঃ নভেম্বর ৩, ২০১৯ আপডেটঃ ২:২৯ অপরাহ্ন

শুরুটা হয়েছিলো হলিউডে। এরপর ঝড়ের বেগে এটি আঘাত হানে বলিউডে। একের পর এক বিখ্যাত সব মানুষদের মুখোশ উন্মোচন করে দিয়েছে মিটু আন্দোলন। অমিতাভ বচ্চনের মতো তারকার দিকেও যৌন হেনস্তার অভিযোগের কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হয়েছে।

এবার গায়িকা শ্বেতা পণ্ডিত মুখ খুলেছেন। তিনি জানিয়েছেন, ১৫ বছর বয়সে জনপ্রিয় গায়ক আনু মালিকের নোংরামির শিকার হয়েছিলেন তিনি। কৌশলে নিজেকে বাঁচিয়ে নিতে পেরেছিলেন বলে তেমন কোনো দুর্ঘটনা ঘটেনি।

এমনই অভিযোগ গায়িকার। বলিউডে #MeToo আন্দোলন শুরু হওয়ার পর খানিকটা মনে শান্তি পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন তিনি। কারণ, কোনোদিনই বলিউডের প্রতাপশালী মিউজিক কম্পোজার আনু মালিকের বিরুদ্ধে মুখ খুলতে পারেননি তিনি। এই আন্দোলন না হলে সেটা পারতেনও না।

এদিকে কয়েকদিন আগেই আনু মালিকের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছেন গায়িকা নেহা ভাসিন। এরপর শ্বেতার প্রসঙ্গে টেনে এনে আরও একবার আনু মালিককে এক হাত নিয়েছেন নেহা।

শ্বেতা তার ট্যুইটে লিখেছেন, ‘২০১৯-এও আমরা নিগৃহীতাকে প্রশ্ন করি। দুই দশক ধরে এই ইন্ডাস্ট্রিতে গায়িকা হওয়া সত্ত্বেও এত নোংরা মানসিকতার লোক দেখতে হয়।

তারা কোনো কথা বলে না। ভীতু সব। ২০০১ সালে যখন আমার সঙ্গে হয়েছিল তখন আমি কী বলতাম? একজন স্কুলের ছাত্রী কী বলবে? ধন্যবাদ #MeToo।’

শ্বেতার হয়ে নেহা জানিয়েছেন, ‘শ্বেতা ১৫ বছরের ছিল যখন তার সঙ্গে অভব্য আচরণ করেছিল আনু মালিক। লজ্জা হওয়া উচিত। নিগৃহীতাকে নয়, কাপুরুষগুলোকে প্রশ্ন করতে শিখুন।’

আরএম-০৪/০৩/১১ (বিনোদন ডেস্ক)