একসঙ্গে ১৭টি চাকরির অফার পেল

করোনা মহামারির কারণে গত দুই বছরে একাধিক সেক্টরে দেখা দিয়েছিল চাকরির আকাল। কর্মী ছাঁটাইয়ের অভিযোগও ওঠে বহু প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে। চাকরি হারানোর ধাক্কা এখনো সামলে উঠতে পারেননি অনেকেই। কিন্তু এমন সময়েই একসঙ্গে ১৭টি চাকরির অফার পেয়ে তাক লাগালেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের হাওড়ার বাসিন্দা অরিজিৎ রায়।

অরিজিতের এমর সাফল্যে খুশি তার পরিবার এবং আত্মীয়স্বজনরাও। জি নিউজ, আনন্দবাজার, দ্য ওয়ালসহ ভারতের স্থানীয় বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে এ খবর।

করোনা পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হওয়ায় ধীরে ধীরে আবারও বিভিন্ন সেক্টরে কাজের সুযোগ তৈরি হয়েছে। ভারতের ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজগুলোতেও চলছে ক্যাম্পাসিং। এর মধ্যেই এমন অভিনব কাণ্ড ঘটল অরিজিতের সঙ্গে। তবে একসঙ্গে ১৭টি চাকরির অফার পাওয়ার পর কোথায় চাকরি করবেন, এখন পর্যন্ত সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে পারেননি বলে জানিয়েছেন চুঁচুড়ার হুগলি ইঞ্জিনিয়ার অ্যান্ড টেকনোলজি কলেজের ছাত্র অরিজিৎ রায়।

তিনি গত দুই মাসে ১৭টি বহুজাতিক কোম্পানি থেকে চাকরির অফার পেয়েছেন। অরিজিতের মতো ওই কলেজের আরও কয়েকজন ছাত্র উইপ্রো, টিসিএস, ইনফোসিসের মতো বিভিন্ন কোম্পানি থেকে চাকরির অফার পেয়েছেন।

গণমাধ্যমকে অরিজিৎ বলেন, ‘কম্পিউটার সায়েন্সের মূল বিষয় হল প্রোগ্রামিং। যেটা খুব ভালো করে শিখতে পারায় চাকরি পেতে সুবিধা হয়েছে।’

এ বিষয়ে হুগলি ইঞ্জিনিয়ার অ্যান্ড টেকনোলজি কলেজের অধ্যক্ষ ড. স্মিতধী গঙ্গোপাধ্যায় বলেন, ‘করোনার জন্য অনেকের চাকরি চলে গেছে এটা ঠিক। তবে আমাদের কলেজের শিক্ষার্থীদের কাছে বেশ ভালো ভালো চাকরির সুযোগ এসেছে।’

এসএইচ-১৮/০২/২২ (অনলাইন ডেস্ক)

Exit mobile version