সকালে নাস্তায় রাখবেন না যে খাবার

প্রকাশিতঃ অক্টোবর ৯, ২০১৮ আপডেটঃ ৫:৩০ অপরাহ্ন

সকালের নাস্তায় কি খাচ্ছেন? পরোটা, রুটি বা ভাত? অনেকেই রয়েছেন, যারা সকালের নাস্তা করেন না। কাজের চাপে অথবা সময়ের অভাবে কিংবা ইচ্ছাকৃতভাবেই অনেকে সকালের নাস্তা বাদ দিয়ে থাকেন। এভাবে নিজের অজান্তেই স্বাস্থ্যের ক্ষতি করছেন। সকালের নাস্তা সারাদিনের কাজের শক্তি দিয়ে থাকে। কিন্তু এমন অনেক খাবার রয়েছে যেগুলো একদমই সকালের নাস্তা হিসেবে খাওয়া উচিত নয়। সেসব খাবার সম্পর্কে জেনে নিন-

১) কর্মব্যস্ত এই জীবনে সবাই চায় ঝামেলামুক্ত সকালের নাস্তা। এর মধ্যে দুধে চিনিযুক্ত সিরিয়াল সবচেয়ে সহজ একটি খাবার। কৃত্রিম রঙ ও চিনির কারণে এই খাবারটি খেতে খুবই সুস্বাদু। চিনি ওজন বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। শুধু তাই নয়, চিনি রক্তে সুগারের মাত্রা বৃদ্ধিতেও সাহায্য করে থাকে। আর রক্তে চিনির মাত্রা বৃদ্ধি পেলে ক্ষুধার মাত্রাও অনেক বৃদ্ধি পায়। তাই সিরিয়াল খেতে হলে চিনি ছাড়া সিরিয়াল খাওয়ার চেষ্টা করতে হবে। সরাসরি চিনিযুক্ত সব ধরণের খাবারগুলো থেকে সকালের নাস্তায় এড়িয়ে চলা স্বাস্থ্যের জন্য ভালো।

২) প্যান কেক খুবই মজাদার একটি খাবার। কিন্তু এই খাবারটি সকালের নাস্তায় খাওয়া একদমই ঠিক না। এই কেকটি চিনির সিরার মধ্যে ভিজিয়ে তৈরি করা হয়ে থাকে। যার ফলে এতে প্রচুর পরিমাণে ফ্যাট ও ফুট্রোজ উপাদন থাকে। যা হার্টের জন্য খুবই ক্ষতিকর।

৩) অনেকেই সকালের নাস্তায় বাজার থেকে কেনা ফলের রস পান করে থাকেন। এটি একটি স্বাস্থ্যকর খাবার। কন্তু বর্তমানে বাজার থেকে কেনা আর্টিফিসিয়াল ফলের রস মূলত স্বাস্থ্যকর নয়। বাজার থেকে কেনা ফলের জুসে পুষ্টির পরিমাণ, ফাইভার, এনজাইম, মিনারেলস, অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট ও ভিটামিনের পরিমাণ খুবই কম থাকে। আর এসব ফলের রসের পরিবর্তে সম্পূর্ণ ফল খাওয়ার চেষ্টা করুন। আর বাজার থেকে কেনা ফলের রস পান না করে ঘরে তৈরি ফলের রস খেতে পারেন।

৪) অনেকেই সকালের নাস্তার জন্য বাসায় পরোটা বানিয়ে থাকেন। কিন্তু এই পরোটা তৈরিতে ঘি অথবা তেল ব্যবহার করা হয়। যা আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য খুবই ক্ষতিকর। তাই পরোটা খেতে ইচ্ছা হলে অল্প তেলে ভেঁজে বা তেল ছাড়া ভেঁজে খেতে পারেন।

৫) খুবই কম সময়ে তৈরি করা যায় বলে অনেকে সকালের নাস্তায় নুডুলস খেয়ে থাকেন। এই নুডুলস এর মধ্যে বিএইচএ ও টিবিএইচকিউ থাকে। যা আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য খুবই ক্ষতিকর। ২০১৪ সালের এক গবেষণায় দেখা গেছে যে, অতিরিক্ত নুডুলস খেলে হৃদরোগের সম্ভাবণা অনেক বেড়ে যায়। এটি ওজন বৃদ্ধি করতেও সাহায্য করে থাকে।

৬) সকালের খাবারে কখনো ডোনাট খাওয়া ঠিক নয়। একটি ক্রিম ডোনাটে ৬ গ্রাম ফ্যাট ও ২৫০ গ্রাম ক্যালরি থাকে। অনেক সময় এই ক্যালরির পরিমাণ ৩০০ গ্রাম ও ফ্যাট ৯ গ্রাম পর্যন্ত বাড়তে পারে। তাই সকালের খাবারে ডোনাটস খেলে তা আপনার শরীরকে অনেক ক্লান্ত করে দিবে।

৭) অনেকে সকালের নাস্তায় বাজার থেকে কেনা পাউরুটি খেয়ে থাকেন। সাদা পাউরুটিতে গ্লাইসোনিন ইন্ডেক্স অনেক বেশি থাকে। যা খেলে হজমে সমস্যা দেখা দেয়। এটি রক্তে চিনি ও ইনসুলিনের পরিমাণ বৃদ্ধি করতে সাহায্য করে। যার ফলে শরীরের ওজন বৃদ্ধি পায় ও ডায়বেটিস ও হৃদরোগের ঝুঁকি অনেক বেড়ে যেতে সাহায্য করে।

৮) সকালের নাস্তায় উচ্চ ক্যালরিযুক্ত খাবার খাওয়া ঠিক নয়। চকলেট, বার্গার, স্যান্ডুউইচের মতো খাবার সকালের নাস্তা থেকে দূরে রাখতে হবে। এসব উচ্চ ক্যালরিযুক্ত খাবারের পরিবর্তে ফল, শসা বা বাদাম খেতে পারেন।

৯) সকালের নাস্তার জন্য কখনই কোল্ড ড্রিংকস বা ঠান্ডা পানীয় রাখা যাবে না। সকালে ঘুম থেকে উঠলে শরীর অনেক নরম থাকে। তাই এ সময় শরীরের তাপমাত্রার সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে খাবার খেতে হবে। আর কোল্ড ড্রিংসে উচ্চ মাত্রার সুগার থাকে। তাই সকালের নাস্তায় কোল্ড ড্রিংস থেকে বিরত থাকা উচিত।

আরএম-০৯/০৯/১০ (স্বাস্থ্য ডেস্ক)