১২০ নারীকে ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণে প্রধান পুরোহিত গ্রেফতার

প্রকাশিতঃ জুন ৮, ২০১৯ আপডেটঃ ৭:১৫ অপরাহ্ন

এ যেন আরেক বাবা রামরহিম। নিজের আশ্রমে একাধিক মহিলা ভক্তকে যৌন নির্যাতন করত স্বঘোষিত ধর্মগুরু রামরহিম। আপাতত জেলবন্দি সে। কিন্তু সেই হরিয়ানায় খোঁজ মিলল একইরকম আরও এক পাষণ্ডের।

একজন বা দু’‌জন নয়, ১২০ জন মহিলাকে ধর্ষণ করার অভিযোগে গ্রেফতার করা হলো হরিয়ানার ফতেহাবাদের বাবা বালকনাথ মন্দিরের প্রধান পুরোহিত বাবা অমরপুরিকে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ওই পুরোহিতের কুকীর্তির ভিডিও ছড়িয়ে পড়তেই শুক্রবার তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

ইতিমধ্যে ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় মামলা রুজু করে তদন্তে নেমেছে পুলিশ। সংবাদসংস্থা এএনআই–কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এক পুলিশ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ‘‌আমরা মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করেছি। আমরা ওই পুরোহিতের বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে কিছু আপত্তিকর জিনিসও উদ্ধার করেছি।’‌

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, বাবা অমরপুরি নামে ওই পাষণ্ড অন্তত ১২০ জন নারীকে ধর্ষণ করেছে এবং সেগুলি ক্যামেরাবন্দি করে রাখে। এরপর মাঝেমধ্যেই ওই ভিডিওগুলির সাহায্যে ওই মহিলাদের ব্ল্যাকমেইল করত সে। ইতিমধ্যে পুলিস সেই ভিডিওগুলি উদ্ধার করেছে।

জানা গেছে, প্রত্যেকটি ভিডিও পৃথক পৃথক মহিলার। ওই পুরোহিতের কড়া শাস্তির দাবি তুলেছেন স্থানীয়রা। জম্মুতে ৪ জন পাকিস্থানি গুপ্তচরকে আটক করল ভারতের নিরাপত্তা বাহিনী

জম্মু–কাশ্মীরের দোরা, উধমপুর, কাথুয়া থেকে পাকিস্থানি গুপ্তচর সন্দেহে ৪ জনকে আটক করল ভারতের নিরাপত্তা বাহিনী। নিরাপত্তা বাহিনী সূত্রে খবর, এই ৪ জন গুপ্তচরের সঙ্গে পাকিস্থানের গুপ্তচর সংস্থা আইএসআই এবং পাকিস্থানের জঙ্গি সংগঠন হিজবুল মুজাহিদিনের যোগ আছে।

জম্মু–কাশ্মীরের সামরিক ঘাঁটিগুলির আশেপাশে এই ৪ জনকে ছবি তুলতে ও ভিডিওগ্রাফি করতে দেখা গিয়েছে। অনেকক্ষণ ধরেই নিরাপত্তা বাহিনী এই ৪ জনের গতিবিধি নজরে রাখছিল। সময়মতো সুযোগ পেয়েই ৪ জনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে নিরাপত্তা বাহিনী।

এই বিষয়ে একজন সেনা কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ‘‌এই ৪ জনের ফোন স্ক্যান করার পর আমাদের সামরিক ঘাঁটির অনেক ছবি–ভিডিও উদ্ধার করা হয়। ফোন ঘেঁটে দেখা যায়, এই ৪ জনই পাকিস্থানের বেশকিছু মানুষের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখে। তাদের মধ্যে একজন হল পাকিস্থানের গুপ্তচর সংস্থা আইএসআইয়ের কর্নেল ইফতিখার আহমেদ।’‌

পুলওয়ামার পর আবার জম্মু–কাশ্মীরেই বড়সড় জঙ্গি হামলার ছক কষছে আইএসআই এবং পাকিস্থানের জঙ্গি সংগঠনগুলি বলে আশঙ্কা করছে নিরাপত্তা বাহিনী।

এসএইচ-২৮/০৮/১৯ (আন্তর্জাতিক ডেস্ক)