দুর্নীতি মামলায় খালাস পেলেন নওয়াজ শরীফ

পাকিস্তানের বহুল আলোচিত অ্যাভেনফিল্ড দুর্নীতি মামলা থেকে খালাস পেয়েছেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ। বুধবার (২৯ নভেম্বর) ইসলামাবাদ হাইকোর্টের দুই সদস্যের বেঞ্চ নওয়াজকে এই মামলা থেকে খালাসের আদেশ দেন।

অবৈধ অর্থ দিয়ে যুক্তরাজ্যের লন্ডনে সম্পদ গড়ার অভিযোগে ২০১৮ সালে অ্যাভেনফিল্ড দুর্নীতি মামলায় নওয়াজকে ১০ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। কিন্তু পাঁচ বছর পর দুর্নীতির দায় থেকে মুক্তি পেয়েছেন তিনি।

আগামী বছরের ফেব্রুয়ারিতে পাকিস্তানে সাধারণ নির্বাচন হবে। নির্বাচনের আগে দুর্নীতি মামলা থেকে খালাস পাওয়ার বিষয়টি নওয়াজ শরীফের জন্য বড় একটি স্বস্তি।

এছাড়া অপর এক দুর্নীতি মামলায় আদালতের দেওয়া খালাসের রায়ের বিরুদ্ধে করা আপিল তুলে নিয়েছে দেশটির দুর্নীতি বিরোধী সংস্থা। এরমাধ্যমে তার সামনে থেকে আরেকটি বাধা দূর হয়ে গেছে।

আদালত খালাস দেওয়ার প্রতিক্রিয়ায় নওয়াজ শরীফ বলেছেন, ‘আমি আল্লাহকে ধন্যবাদ জানাই। আমি পুরো বিষয় তার ওপর ছেড়ে দিয়েছিলাম। আজ আল্লাহ আমাদের বিজয়ী করেছেন।’

তবে নওয়াজ শরীফের বিরুদ্ধে এখনো আল-আজিজিয়া স্টিল মিল মামলার রায় বহাল রয়েছে। ২০১৮ সালে আল-আজিজিয়া মামলায় নওয়াজকে ৭ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। এই রায়ের বিরুদ্ধেও আপিল করেছেন তিনি। ধারণা করা হচ্ছে, নির্বাচনের আগে এ মামলার আপিল শুনানি সম্পন্ন হবে।

২০১৯ সালে জামিন নিয়ে চিকিৎসার জন্য বিদেশে চলে যান নওয়াজ শরীফ। এরপর আর পাকিস্তানে ফেরেননি তিনি। তবে ২০২২ সালে ইমরান খান আস্থাভোটে পদচ্যুত হলে নওয়াজের ফেরার সম্ভাবনা তৈরি হয়। সেই সম্ভাবনা বাস্তবে পরিণত করে গত মাসে ফিরে আসেন তিনি।

সূত্র: পিটিআই

এসএ-১৭/১৫/২৪(আন্তর্জাতিক ডেস্ক)