সেই রিকশা চালকের সন্ধান চায় জেলা প্রশাসন

প্রকাশিতঃ জুন ১৩, ২০১৮ আপডেটঃ ৯:৪৪ অপরাহ্ন

রাস্তায় কুড়িয়ে পেয়েছিলেন ৮৫ হাজার টাকা। সেই টাকা তুলে দিয়েছিলেন জিন্দাবাজারে দায়িত্ব পালনরত ভ্রাম্যমাণ আদালতের ম্যাজিস্ট্রেট সাজ্জাদুল হাসান ও উম্মে সালিক রুমাইয়ার কাছে।

পরে ওই টাকা প্রকৃত মালিকের হাতে তুলে দেন সিলেটের দুই নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট। ঈদের এই সময়ে এভাবে টাকা ফেরত পেয়ে যারপরনাই বিস্মিত ও খুশি হন টাকার মূল মালিক। আর এই টাকা ফেরত পাওয়ার নেপথ্য নায়ক যে রিকশাওয়ালা, তাকে পুরস্কৃত করতে চায় জেলা প্রশাসন।

আরও খবর: দুলাভাইয়ের বাড়িতে শ্যালকের ডাকাতি!

সততার উপহারস্বরূপ আক্তারুজ্জামান নামের ওই রিকশাচালককে সম্মাননা দিতে চান জেলা প্রশাসক নুমেরী জামান। কিন্তু তার ঠিকানা জানা না থাকায় যোগাযোগ করতে পারছেন না জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা। এ কারণে তার সন্ধান চাওয়া হয়েছে।

সিলেট জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট উম্মে সালিক রুমাইয়া বলেন, রাস্তায় কুড়িয়ে পাওয়া ৮৫ হাজার টাকা ফেরত দিয়ে রিকশাচালক আক্তারুজ্জামান সততার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। তার এই সততায় মুগ্ধ হয়ে জেলা প্রশাসক নুমেরী জামান সম্মাননা দিতে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। আক্তারুজ্জামানের ঠিকানা কারও জানা থাকলে ০১৯৪৬-৩৯৫৮৮১ নম্বরে যোগাযোগ করতে অনুরোধ জানান তিনি।

উল্লেখ্য, ১১ জুন জিন্দাবাজারে রাস্তায় ৮৫ হাজার টাকা কুড়িয়ে পান আক্তারুজ্জামান।

বিএ-১৫/১৩-০৬ (আঞ্চলিক ডেস্ক, তথ্যসূত্র: সমকাল)