উসমান খাজার সাহসী পদক্ষেপের প্রশংসা করলেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী

পাকিস্তানের বিপক্ষে চলমান তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজের প্রথমটি অনুষ্ঠিত হয় পার্থে। সিরিজের প্রথম টেস্টে বাবর আজমদের ৩৬০ রানে হারায় স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া।

পার্থে সিরিজের প্রথম টেস্টে জুতায় ইসরাইলি আগ্রাসনে ক্ষতবিক্ষত ফিলিস্তিনের জন্য সহানুভূতি জানিয়ে স্লোগান লিখে খেলতে চেয়েছিলেন অস্ট্রেলিয়ান তারকা ওপেনার উসমান খাজা; কিন্তু ‘রাজনৈতিক’ কারণ দেখিয়ে খাজাকে অনুমতি দেয়নি আইসিসি।

মেলবোর্নে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টে ব্যাট ও জুতায় শান্তির প্রতীক পায়রার স্টিকার লাগিয়ে খেলতে চেয়েছিলেন অস্ট্রেলিয়া দলের একমাত্র এই মুসলিম তারকা ক্রিকেটার।

পার্থের মতো মেলবোর্ন টেস্টেও উসমান খাজাকে অনুমতি দেয়নি আইসিসি। প্রথম টেস্টটা কালো বাহুবন্ধনী পরে খেলা খাজা দ্বিতীয় টেস্টে জুতায় নিজের দুই মেয়ে আয়লা ও আয়েশার নাম লিখে খেলে প্রতিবাদ জানিয়েছিলেন।

আগামীকাল থেকে সিডনিতে শুরু হবে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ টেস্ট। তার আগে উসমান খাজার ভূয়সী প্রশংসা করেছেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী অ্যান্থনি অ্যালবানিজি।

সোমবার সিডনির কিরিবিলি হাউসে নববর্ষ উপলক্ষে অস্ট্রেলিয়া ও পাকিস্তানের টেস্ট দলকে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী উসমান খাজার প্রসঙ্গে টেনে অ্যালবানিজি বলেন, ‘উসমান খাজা মানবাধিকারের পক্ষে দাঁড়িয়ে সাহসের পরিচয় দিয়েছে, আমি তাকে অভিনন্দন জানাতে চাই। সে সাহস দেখিয়েছে, আর পুরো দলও যে তাকে সমর্থন দিয়ে গেছে, সেটিও দারুণ ব্যাপার ছিল।’

এসএ-০৫/০২/২৪(স্পোর্টস ডেস্ক)