সুপার ওভারে হারল খুলনা

প্রকাশিতঃ জানুয়ারী ১২, ২০১৯ আপডেটঃ ৬:২০ অপরাহ্ন

বিপিএলের চলতি আসরে হেরেই চলছে খুলনা টাইটান্স। শনিবার আসরে নিজেদের চতুর্থ ম্যাচে তাই জয়ের জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছিল মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের দল। দারুণ রোমাঞ্চ শেষে চিটাগংয়ের সাথে তাদের ম্যাচটি টাই হয়ে গড়ালো সুপার ওভারে। আর সুপার ওভারে আবার কপাল পুড়ল মাহমুদউল্লাহর। হেরে গেলে খুলনা টাইটান্স।

সুপার ওভারে প্রথমে ব্যাট করে খুলনাকে ১২ রানের লক্ষ্য দেয় চিটাগং। কিন্তু ডেভিড মালান, পল স্টার্লিংয়ের চেষ্টা স্বত্বেও ১০ রান পর্যন্ত তুলতে পারে খুলনা। ফলে টানা চতুর্থ ম্যাচেও জয় শূন্য থাকল দলটি।

এদিন শেষ ওভারে জয়ের জন্য চিটাগংয়ের প্রয়োজন ছিল ১৯ রান। ২০তম ওভারে মাহমুদউল্লাহ বল তুরে দেন আরিফুল হকের হাতে। স্ট্রাইকে ছিলেন নাঈম হাসান। প্রথম বলটি ব্যাটে লাগাতে পারেননি নাঈম—ডট হয়। দ্বিতীয় বলে ছক্কা! কিন্তু তৃতীয় বলে ক্যাচ তুলে আউট হয়ে যান নাঈম।

এর মধ্যে প্রান্ত বদল করে স্ট্রাইকে যান রবি ফ্রাইলিংক চতুর্থ ও পঞ্চম বলে পরপর দুইটি ছক্কা মেরে খুলনার স্কোর ১৫১ স্পর্শ করেন ফ্রাইলিংক। শেষ বলে এক রান নিলেই জয় নিশ্চিত। কিন্তু আরিফুলের করা শেষ বলটি ব্যাটে ছোঁয়াতে পারেননি তিনি। বল গিয়ে জমা হয় উইকেটকিপারের গ্লাভসে। এই সুযোগ রান নিতে গিয়ে রান আউটের শিকার হন ফ্রাইলিংক। ফলাফল : টাই। ম্যাচ গড়ায় সুপার ওভারে।

অথচ শুরুটা বেশ ভালোভাবেই হয়েছে চিটাগংয়ের। ইয়াসির শাহ, মুশফিকুর রহীমদের ব্যাটে জয়ের দিকে ভালোভাবেই এগিয়ে যাচ্ছিল তারা। কিন্তু শরিফুল ইসলামের বলে ইয়াসির শাহ আউট হয়ে গেলে ম্যাচ ঘুরে যেতে থাকে খুলনার দিকে। ২টি করে ছক্কা ও চারে সাজিয়ে ৩৪ বলে ৪১ রান করেন ইয়াসির।

মুশফিকও ২৬ বলে ৩৪ রান করে আউট হয়ে যান। তবে চিটাগংকে স্বপ্ন দেখাচ্ছিলেন ফ্রাইলিংক। কিন্তু তার ১৩ বলের ২৩ রানের ইনিংসটিও শেষ হয় টাইতে এসে।

এর আগে ডেভিড মালান ও মাহমুদউল্লাহর ব্যাটে ভর দিয়ে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৫১ রান সংগ্রহ করে খুলনা। মালান ৪৩ বলে ৪৫ ও মাহমুদউল্লাহ ৩১ বলে ৩৩ রান করেন। এছাড়া পল স্টার্লিং ১০ বলে ১৮ ও জুনাইদ সিদ্দীকি ১৫ বলে ২০ রান করেছেন।

এসএইচ-১৫/১২/১৯ (স্পোর্টস ডেস্ক)