ভারতে ভেজাল মদপানে ৪৪ জনের মৃত্যু

প্রকাশিতঃ ফেব্রুয়ারী ৯, ২০১৯ আপডেটঃ ৫:১৫ অপরাহ্ন

ভারতের উত্তর প্রদেশে গত তিন দিনে ভেজাল মদপানে অন্তত ৪৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। কর্মকর্তারা বলছেন, সাহারানপুর জেলায় ৩৬ জন ও কুশিনগর জেলায় আট জন প্রাণ হারিয়েছেন। তাছাড়া মদপান করে অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন আরও কয়েক ডজন মানুষ।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, ভেজাল মদপান করে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আরও বেশ কয়েকজনের মৃত্যু হতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন চিকিৎসকরা।

উত্তর প্রদেশ পুলিশের দাবি, সাহারানপুরে যে ৩৬ জনের মৃত্যু হয়েছে তারা উত্তরাখন্ডে একটি শেষকৃত্যের অনুষ্ঠানে গিয়ে ভেজাল মদ পান করেন। তাছাড়া এক ব্যক্তি সেখান থেকে ৩০ বোতল মদ নিয়ে এসে গ্রামে বিক্রি করেন। যা থেকে অনেকে অসুস্থ হয়েছেন নয়তো ও প্রাণ হারান।

সরকারি কর্মকর্তারা বলছেন, কুশিনগর জেলায় ভেজাল মদপানে যে আট জনের মৃত্যু হয়েছে সেই মদ এসেছে বিহার প্রদেশ থেকে। বিহারে মদ উৎপাদন নিষিদ্ধ বলেও জানিয়েছেন তারা।

সাহারানপুরের জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এ কে পান্ডে বলেন, ‘আমরা যদি প্রথমেই তাদেরকে চিকিৎসা দিতে পারতাম তাহলে হয়তো এত মানুষের প্রাণহানি ঘটতো না। যে ব্যক্তি গ্রামে ৩০ বোতল মদ নিয়ে এসেছিলেন তার কয়েকটি বোতল উদ্ধার করা হয়েছে। যারা এসব মদপান করেছেন তারা হয় প্রাণ হারিয়েছেন নয়তো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।’

উল্লেখ্য, ভারতের উত্তর প্রদেশে প্রায়শই ভেজাল মদপানে মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়। ২০১১ সাল থেকে মোট আটটি ঘটনায় ভেজাল মদপানে প্রদেশটির ১৭৫ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

এসএইচ-১৫/০৯/১৯ (আন্তর্জাতিক ডেস্ক, তথ্য সূত্র : এনডিটিভি)