মেয়ের পরিচর্যায় ১২ জন পরিচারক!

প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৮ আপডেটঃ ১১:২৬ অপরাহ্ন

প্রাচুর্য আর আভিজাত্য থাকলে যা হয়। আগেকার যুগে রাজকুমারীদের জন্য রাজা-বাদশাহরা যা করতেন, এ যুগে তাই করতে যাচ্ছেন এক ভারতীয় ধন কুবের। তার মেয়ে বিদেশে পড়তে যাবে। সেখানে তাকে সবরকমের সহায়তা করার জন্য সবমিলিয়ে ১২ জন পরিচারক নিয়োগ করতে যাচ্ছেন এই বিলিওনিয়ার।

চলতি মাসেই তাঁর মেয়ে সেন্ট অ্যান্ড্রুজ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে চার বছরের একটি কোর্স করার জন্য স্কটল্যান্ড যাচ্ছে। ব্রিটিশ প্রাইভেট এস্টেটের জন্য কর্মী খুঁজতে দক্ষ প্রতিষ্ঠান সিলভার সোয়ান রিক্রুটমেন্টের মাধ্যমে বিজ্ঞাপন দেওয়া হয়েছে।

বিজ্ঞাপনে লেখা রয়েছে, একটি বিত্তবান ভারতীয় পরিবার একজন খানসামা বা প্রধান পরিচারক, একজন উদ্যানপালক, তিনজন হাউসকিপার, হাউস ম্যানেজার, পরিচারিকা, গাড়িচালক, রাঁধুনি ও তিনজন পিওনকে নিযুক্ত করবে।। যারা ওিই পরিবারের মেয়ের দেখাশুনা করবে। তারা থাকবে পাশেরই একটি বিলাসবহুল বাড়িতে।

মেয়ের পরিচারিকদের কাজের ধরন সম্পর্কে বিজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, “ঘুম থেকে তোলা থেকে শুরু করে, অন্যান্য কর্মীদের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে সবদিক দেখাশোনা করা, ওয়ারড্রোব ম্যানেজমেন্ট ও শপিং এ সাহায্য করতে হবে পরিচারকদের। তিন পিওন বা খানসামা খাবার পরিবেশন ও বাড়ি পরিষ্কারের দায়িত্বে থাকবেন। যতোটা সম্ভব মেয়েকে প্রতিটা দরজা খুলে দেওয়াও পরিচারকদের দায়িত্বের মধ্যে পড়বে বলে বিজ্ঞাপনে জানানো হয়েছে।”

পরিচারকদের বছরে ২৮ লাখ করে টাকা দেয়া হবে। বিজ্ঞাপনে আরো বলা হয়েছে, ‘এই পরিবার, অত্যন্ত ফরমাল ও তারা অভিজ্ঞতাসম্পন্ন কাজের মানুষ খোঁজ করছে।’ তবে অ্যান্ড্রুজ বিশ্ববিদ্যালয়ের মুখপাত্র অবশ্য বলছেন, ‘এটা ছাত্রদের ব্যক্তিগত জীবন। তারা যেভাবে চায়, সেভাবে থাকতে পারে।’

এসএইচ-২৮/১২/০৯ (অনলাইন ডেস্ক, তথ্য সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া)