ফের কোন কারনে মামলা সালমানের বিরুদ্ধে?

প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৮ আপডেটঃ ৯:২৭ অপরাহ্ন

ফের আইনি সমস্যায় ভাইজান৷ এ বছরের শুরু থেকেই বিভিন্ন আইনি সমস্যায় জড়িয়ে পড়েছেন সালমান খান৷ ‘লাভরাত্রি’ ছবির টাইটেলের বিরুদ্ধে ফের উঠল আওয়াজ৷ সালমান সহ আরও সাতজন অভিনেতার বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করা হয়েছে, মামলা গড়িয়েছে মুজফফরপুর আদালত পর্যন্ত৷ অভিযোগকারী এক আইনজীবী সুধির ওঝা৷ তাঁর অভিযোগ আসন্ন ছবি ‘লাভরাত্রি’ টাইটেলটি হিন্দুদের ভাবাবেগে আঘাত করেছে৷

মুজফফরপুরের সাব-ডিভিশনাল জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শৈলেন্দ্র রাইয়ের কাছে আবেদন জমা পড়ে৷ তিনি সেই আবেদন বুধবার মনজুর করেন৷ তারপরই মিঠানপুর থানায় সলমন এবং ছবির দুই অভিনেতা আয়ুশ শর্মা (সলমনের ভগ্নিপতি) এবং অভিনেত্রী ওয়ারিনা হুসেনের বিরুদ্ধে এফআইআরটি রেজিস্টার হয়৷ ৬ সেপ্টেম্বর সুধির ওঝা আবেদনটি আদালতে জানিয়ে বলেছিলেন নবরাত্রি উৎসবের নামে অশ্লীলতা দেখানো হয়েছে৷

ওঝার আবেদনে এও লেখা আছে যে ছবির টাইটেল মা দুর্গার অসম্মান করা হয়েছে৷ ভারতীয় দণ্ডবিধি অনুযায়ী, ২৯৫, ২৯৮, ১৫৩, ১৫৩(B), ১২০ ধারায় অভিযোগটি দায়ের হয়েছে৷ ছবিটির টিজার মুক্তি পাওয়ার আগেই কন্ট্রোভার্সির মধ্যে পড়েছিলেন সলমন খান৷ বিশ্ব হিন্দু পরিসদ সালমানকে হুমকি দিয়েছিলেন ছবির নামকরণের জন্য৷

তাঁদের মতে নবরাত্রি উৎসবকে অপমান করা হয়েছে৷ ছবির নাম ‘লাভরাত্রি’ দেওয়া উচিত হয়নি৷ এমনকি তাঁরা এও ঘোষণা করেছিলেন, যে ব্যক্তি সালমানকে প্রকাশ্যে চড় মারতে পারবে তাকে ৫ লাখ টাকা পুরষ্কার দেওয়া হবে৷ আর যে সিনেমার সেটকে নষ্ট করবে তাকে ২ লক্ষ টাকা পুরষ্কার দেওয়া হবে৷

বিশ্ব হিন্দু পরিষদের প্রাক্তন আন্তর্জাতিক সভাপতি প্রবীণ তোগাড়িয়ার নয়া সংস্থা হিন্দু হাই এজ-এর আগ্রার ইউনিট চিফ গোবিন্দ পরাশর এমন ঘোষণা করেছিলেন৷ গোবিন্দ পরাশর এবং সংস্থার অন্যান্যরা ভগবান টকিজের সামনে হাজির হয়ে সালমানের ছবির পোস্টার পুড়িয়ে দেয়৷ সেই সঙ্গে সালমান এবং তার লাভরাত্রি ছবির বিরুদ্ধে স্লোগানও তুলেছিল তারা৷

গোবিন্দ পরাশর স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছিলেন, সালমানের এই ছবি একটি পবিত্র উৎসবকে বিকৃত করছে যা লাখ লাখ হিন্দুর মনে আঘাত দিয়েছে৷ এর তীব্র নিন্দা করে ছবিটি নিষিদ্ধ করার কথা বলেছিলেন তিনি৷ এবং কোনওমতেই ছবির প্রদর্শন যে হতে দেবেন না তাও সাফ জানিয়ে দিয়েছিলেন গোবিন্দ পরাশর৷

তিনি আরও জানিয়েছিলেন, সেনসর বোর্ডের এই ছবিকে ছাড়পত্র দেওয়া উচিত নয়৷ যদি ছাড়পত্র পেয়েও যায় তাহলে তা হিন্দু হাই এজের বিক্ষোভকে আমন্ত্রণ জানাবে৷ আগামী ৫ অক্টোবর মুক্তি পাওয়ার কথা ছবিটির৷

এসএইচ-২২/১২/০৯ (বিনোদন ডেস্ক, তথ্য সূত্র : কলকাতা২৪)